৩ কোটি টাকা বিনিয়োগে আইপিও কোটার সুবিধা

সময়: Monday, May 23rd, 2022 6:19:53 pm

নিউজবিজ্ প্রতিবেদক : প্রাথমিক গণপ্রস্তাবে (আইপিও) কোটা সুবিধা নিতে যোগ্য বিনিয়োগকারীদেরকে শেয়ারবাজারে তালিকাভুক্ত সিকিউরিটিজে ৩ কোটি টাকার বিনিয়োগ থাকতে হবে।

সোমবার (২৩ মে) বাংলাদেশ সিকিউরিটিজ অ্যান্ড এক্সচেঞ্জ কমিশনের (বিএসইসি) ৮২৪তম নিয়মিত সভায় এই সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে।

বিএসইসির নির্বাহী পরিচালক ও মূখপাত্র মোহাম্মদ রেজাউল করিম সাক্ষরিত এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে এ তথ্য জানানো হয়েছে।

বর্তমানে আইপিও কোটা সুবিধা নেওয়ার জন্য যোগ্য বিনিয়োগকারীদেরকে আইপিও শুরু হওয়ার আগে একটি নির্দিষ্ট তারিখে (কাট-অফ ডেট) তালিকাভুক্ত সিকিউরিটিজে ১ কোটি টাকার বিনিয়োগ থাকতে হয়। যা বাড়িয়ে আজকের কমিশন সভায় ৩ কোটি টাকা করা হয়েছে।

শেয়ারবাজারে প্রাতিষ্ঠানিক বিনিয়োগকারীর মাধ্যমে তারল্য বৃদ্ধির লক্ষ্যে কমিশন এই সিদ্ধান্ত নিয়েছে বলে কমিশনের বিজ্ঞপ্তিতে জানানো হয়েছে।

যোগ্য বিনিয়োগকারীদের পাশাপাশি অনুমোদিত পেনশন ফান্ড এবং স্বীকৃত প্রোভিডেন্ট ফান্ড ও গ্র্যাচুইটি ফান্ড এর ক্ষেত্রে আইপিও কোটার সুবিধা নেওয়ার জন্য বিনিয়োগের পরিমাণ বাড়াতে হবে। বিএসইসির নির্দেশনা অনুযায়ি, এইসব ফান্ডের ক্ষেত্রে শেয়ারবাজারে বিনিয়োগ ৫০ লাখ টাকা থেকে বাড়িয়ে ১ কোটি ৫০ লাখ টাকা করা হয়েছে।

প্রসঙ্গত, অনুমোদিত পেনশন ফান্ড এবং স্বীকৃত প্রোভিডেন্ট ফান্ড ও গ্র্যাচুইটি ফান্ড ইলেকট্রনিক্স সাবসক্রিপশন সিস্টেমে (ইএসএস) নিবন্ধনের ক্ষেত্রে স্টক এক্সচেঞ্জ কর্তৃপক্ষ জাতীয় রাজস্ব বোর্ডের (এনবিআর) অনুমোদনের কপি এবং নিরীক্ষিত আর্থিক প্রতিবেদন ও ব্যাংকের লেনদেন বিবরণী পরীক্ষা করে দেখবে। কোনো ফান্ড তার নিরীক্ষিত আর্থিক প্রতিবেদনে প্রদর্শিত অর্থের অতিরিক্ত কোনো অর্থ  আইপিওতে বিনিয়োগ করতে পারবে না।

নিউজটি ১৬৮ বার পড়া হয়েছে ।